হজম শক্তি বাড়াতে সাহায্য করবে ঘরোয়া টোটকা!

অগোছালো জীবনযাত্রা এবং খারাপ খাদ্যাভ্যাসের কারণে, হজমের সমস্যা আজকের দিনে খুবই সাধারণ ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে। বেশিরভাগ মানুষই হজম সংক্রান্ত সমস্যায় ভোগেন। দুর্বল হজম ক্ষমতার ফলে গ্যাস-অম্বল, বদহজম, পেট ফোলা, পেট ব্যথা, কোষ্ঠকাঠিন্য এবং আরও বিভিন্ন ধরনের শারীরিক সমস্যা দেখা দেয়।

তবে খাদ্যতালিকায় বিশেষ কয়েকটি মশলা ও ভেষজের ব্যবহার, আপনার দুর্বল হজম ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তুলতে পারে! তাহলে দেখে নিন, কোন কোন মশলা ও ভেষজ হজম ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তুলতে সক্ষম।

জিরা: হজম ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তুলতে জিরা অত্যন্ত কার্যকরী। জিরাতে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বৈশিষ্ট্য বর্তমান, যা পেট ব্যথা ও পেটের অস্বস্তি দূর করতে সহায়তা করে। তাই গ্যাসের সমস্যা এবং পেট ফুলে যাওয়ার মতো হজম সংক্রান্ত সমস্যা দূর করার ক্ষেত্রে, জিরা অত্যন্ত জনপ্রিয় ঘরোয়া প্রতিকার। হজম প্রক্রিয়া ঠিক করতে জিরা ভেজানো জল বেশ উপকারী,।

হলুদ: রান্না ঘরের অন্যতম প্রয়োজনীয় উপাদান হল হলুদ। হলুদ হজম ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তুলতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। বহুগুণ সমৃদ্ধ হলুদে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, অ্যান্টি-ভাইরাল, অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল, অ্যান্টি-ফাঙ্গাল, অ্যান্টি-কার্সিনোজেনিক, অ্যান্টি-মিউটেজেনিক এবং অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বৈশিষ্ট্য বর্তমান। এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তুলতে অত্যন্ত সহায়ক।

আদা: একটি অত্যন্ত চমৎকারী ভেষজ। আদা ভাল হজমে সাহায্য করে। এতে ব্যথা-উপশমকারী এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিকারী বৈশিষ্ট্য বর্তমান। পেটের বিভিন্ন সমস্যা দূর করতে এবং হজম প্রক্রিয়া উন্নত করতে আদা কার্যকর। এছাড়া, আমরা সকলেই জানি যে আদা সর্দি-কাশি-গলা ব্যথা কমাতেও খুব কার্যকরী।

রসুন: হজম প্রক্রিয়া উন্নত করতে পারে এমন ভেষজের মধ্যে অন্যতম হল রসুন। রসুনে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি, অ্যান্টিবায়োটিক এবং অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য বর্তমান। এটি আমাদের হজম ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে তোলা সহ, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকেও শক্তিশালী করে তুলতে সহায়তা করে। তাছাড়া রসুন হজম সংক্রান্ত বিভিন্ন সমস্যার চিকিৎসার ক্ষেত্রেও অত্যন্ত সহায়ক।

সাতসকাল ফিচার
সাতসকাল ই-পেপার
সাতসকাল নিউজ
error: Content is protected !!